ঘাটাইলে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি হচ্ছে দই ও মিষ্টি

0 9

ঘাটাইল  প্রতিনিধি:

টাঙ্গাইলের ঘাটাইল বাস স্ট্যান্ডের জীবন দধি এন্ড মিষ্টান্ন ভান্ডার ও অধিকাংশ কারখানায় অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরি হচ্ছে দই ও মিষ্টি। কারখানার পরিবেশ ও শ্রমিকরাও অস্বাস্থ্যকর। এলাকা বাসীর অভিযোগ এ সব দই, মিষ্টি মুখরোচক আকর্ষনীয় করে তৈরির ক্ষেত্রে তারা ভেজাল মিশায়।বিভিন্ন দই মিষ্টির দোকান ও কারখানা ঘুরে দেখা যায় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গুলো নামে-দামে অনেক বড় থাকলেও অত্যন্ত নোংরা পরিবেশে এসব দই মিষ্টি তৈরি হচ্ছে।ঘাটাইলে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে মিষ্টি তৈরির তালিকায় রয়েছে জীবন দধি এন্ড মিষ্টান্ন ভান্ডার, সাগর মিষ্টান্ন ভান্ডার এন্ড দধি ঘর, আদিব ডেইরী এন্ড সুইটস, শ্রী লোকনাথ মিষ্টান্ন ভান্ডার, টাঙ্গাইল মিষ্টি ঘর, মৌচাক মিষ্টান্ন এন্ড কনফেকশনারী ও চৈতি মিষ্টান্ন ভান্ডার। ঘাটাইলে মিষ্টি তৈরিতে যে ছানা ব্যবহার করা হয় তা বাহির থেকে টানা দুধের ছানা। যখন কোনো ছানা মিষ্টির কারখানায় পৌঁছায় তার আগেই এর গুণাগুণ নষ্ট হয়ে যায়।আর যে ছানা নিজে তৈরি করে তাতে সোডা ও বরিক পাউডার মিশিয়ে দুধ ঘন করা হয়।নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন কারখানার শ্রমিক জানায় স্বাভাবিক নিয়মে ৫-৬ কেজি দুধ থেকে ১ কেজি ছানা তৈরি হয় কিন্তু ভেজাল পদ্ধতিতে সোডা ও বরিক পাউডার মিশানো ৩-৪ কেজি দুধ থেকে ছানা উৎপাদন করা হচ্ছে ১ কেজি পরিমাণ। দীর্ঘ সময় ধরে দুধ ভাল রাখা বা সংরক্ষণের ক্ষেত্রেও ফরমালিন ব্যবহার করা হচ্ছে।কোন প্রকার সরকারী অনুমোদন ছাড়াই ঘাটাইলে গড়ে তোলা হয়েছে দই, ঘি ও মিষ্টির কারখানা। নোংরা পরিবেশে এসব মিষ্টি জাতীয় খাবার তৈরি হলেও স্থানীয় প্রশাসনের নেই কোন নজরদারী। তাইএসব দোকানের বিরদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নিতে প্রশাসনের কঠোর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন সাধারণ ক্রেতারা।
জীবন দধি এন্ড মিষ্টান্ন ভান্ডারের কারখানার মালিক জীবন চন্দ্র ঘোষ বলেন ছবি ও ভিডিও করে কোন ফল হবেনা, কত সাংবাদিক আইলো গেল কোন লাভ নেই। প্রসাশন ম্যানেজ করেই আমরা এই ব্যবসা পরিচালনা করে আসছি।এ বিষয়ে ঘাটাইল উপজেলা নির্বাহী অফিসার অঞ্জন কুমার সরকার বলেন-এ সব মিষ্টির দোকান ও কারখানার বিরুদ্ধে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে দ্রæত অভিযান পরিচালনা করা হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.