ঘাটাইলে নতুন আরও চারজন করোনায় আক্রান্ত

0 22

ঘাটাইল প্রতিনিধি:
টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে নতুন করে আরও চারজন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে একজন ঔষধ ব্যবসায়ী এবং ৫ বছরের শিশুও রয়েছেন। ঘাটাইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে সোমবার (১ জুন) এই তথ্য নিশ্চিত করেছে। ঘাটাইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, ঘাটাইলে নতুন করে চারজন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে ঘাটাইল পৌরসভায় দুইজন এবং উপজেলার দিঘলকান্দি ইউনিয়নের নাটশালা গ্রামের মা-ছেলে রয়েছেন।
ঘাটাইল পৌরসভায় নতুন করে করোনা আক্রান্ত দুইজন হলেন, ঘাটাইল হাসপাতাল গেট এলাকার ঔষধ ব্যবসায়ী ফরিদ তালুকদার। তার বাড়ী পৌরসভার চান্দশি এলাকায়। দ্বিতীয়জন হলেন পৌর এলাকার সবুজবাগের বাসিন্দা সদ্য এসএসসি পাশ করা শামিম।
এছাড়া দিঘলকান্দি ইউনিয়নের নাটশালা গ্রামের মা-ছেলে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের একজনের নাম আলেয়া এবং তার শিশু সন্তান তাওসিফ (৫)। তারা ঢাকা থেকে ঈদের ছুটিতে ঘাটাইলে গ্রামের বাড়িতে এসেছেন।
এনিয়ে ঘাটাইল উপজেলায় মোট ১৪ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেন। এছাড়াও ঘাটাইলের আরেক ফার্মাসিস্ট কালিহাতী নিজ কর্মক্ষেত্রে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।
এদিকে ঘাটাইলে একসাথে চারজন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় সচেতন মহলে আতঙ্ক বিরাজ করছে। তারা বলছেন, ঘাটাইলে যখন করোনা আক্রান্ত কেউ ছিলেন না, তখন করোনা সচেতনতাকল্পে প্রশাসন, পৌর মেয়র এবং স্বেচ্ছাসেবকদের যে কর্মতৎপরতা লক্ষ্য করা গেছে, এখন সেটি স¤পূর্ণ অনুপস্থিত। এই করোনা পরিস্থিতি ঘাটাইলকে কোন পর্যায়ে নিয়ে যায় সেটি নিয়ে অনেকেই উদ্বেগ প্রকাশ করছেন। অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঘাটাইলে লকডাউন বা কারফিউ কার্যকরী করার দাবি জানাচ্ছেন।
এ বিষয়ে পৌরসভার মেয়র শহিদুজ্জামান খান শহীদ জানান, পৌর কর্তৃপক্ষ তো অন্য কোন কর্তৃপক্ষ দ্বারা নিয়ন্ত্রিত, সরকার কোন পদক্ষেপ না নিলে আমরা কিছু করতে পারি না। তবে পৌরসভার যে সমস্ত এলাকায় করোনা আক্রান্ত, শনাক্ত হয়েছে সে সমস্ত এলাকা লকডাউন এবং সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনার জন্য উপজেলা প্রসাশনের সমন্বয়ে জরুরী ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে তিনি আশস্থ করেন।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সাইফুর রহমান খান বলেন, ঘাটাইলে ঔষধ ব্যবসায়ী ও মা-ছেলেসহ নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন চারজন। এদের মধ্যে ঘাটাইল পৌরসভায় দুইজন রয়েছেন। অন্য দুইজন উপজেলার দিঘলকান্দি ইউনিয়নের নাটশালা গ্রামের মা ও ছেলে। আক্রান্তদের বাড়ীসহ এলাকা লকডাউন সংক্রান্ত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা প্রশাসনকে জানানো হয়েছে বলে তিনি জানান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.